বিদেশ থেকে বাংলাদেশে তালাক দেওয়ার সঠিক কার্যকর পদ্ধতি!!!

Post Image

বিদেশ থেকে তালাক দেয়া খুবই ঝামেলাপূর্ণ, সময় সাপেক্ষ ও ব্যয় সাপেক্ষ ব্যাপার। যদি সম্ভব হয় দেশে এসে তালাক দেয়াই ভালো। তারপরও যাদের দেশে আসা সম্ভব নয় তারা স্ত্রীকে তালাক প্রদান করতে হলে দেশে কোন নিকটাত্মীয় কিংবা বিশ্বস্ত কাউকে তালাক প্রদানের ক্ষমতা প্রদান করবেন। এই  ক্ষমতাকে আমরা পাওয়ার অব এ্যাটর্নী বা আমমোক্তারনামা বলি। এটি হচ্ছে একটি আইনগত দলিল। সহজ কথায় বলতে গেলে যে দলিল দিয়ে কোনো ব্যক্তিকে অপর কোনো ব্যক্তির পক্ষে হাজির হয়ে যে সকল কার্যাবলী সম্পাদন করার ক্ষমতা দেয়া হয় তাকে আমমোক্তারনামা দলিল বলে। এ ক্ষেত্রে যাকে আমমোক্তার নিয়োগ করা হলো তিনি আপনার পক্ষে দেশে আপনার স্ত্রীকে তালাকের নোটিশ পাঠানো, সালিশ কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করা, তালাক রেজিষ্ট্রেশন করা ইত্যাদি কার্যাবলি সম্পাদন করবেন। বিদেশ থেকে তালাক দিতে হলে কয়েকটি প্রক্রিয়া সম্পন্ন কর‍তে হয়।

তালাকের কার্যাবলী সম্পাদনের ধাপ সমূহ নিম্নরূপ :

১। নিজে অথবা প্রতিনিধির মাধ্যমে আইনজীবীর সাথে পরামর্শ করুন কাগজপত্র সম্পাদনের জন্য এবং তালাকের নোটিশটি প্রস্তত করুন।

২। আইনজীবীর মাধ্যমে পাওয়ার অব এ্যাটর্নী বা আমমোক্তারনামা/ ক্ষমতা পত্র প্রস্তুত করুন।

৩। পাওয়ার অব এ্যাটর্নী বা আমমোক্তারনামা/ ক্ষমতা পত্র টি ও তালাকের নোটিশটি বিদেশে অবস্থানরত ব্যক্তি (যিনি তালাক দিবেন) তার কাছে পাঠানোর ব্যবস্থা করুন।

৪। পাওয়ার অব এ্যাটর্নী বা আমমোক্তারনামা/ ক্ষমতা পত্রটি যখন বিদেশে অবস্থানরত ব্যক্তি (যিনি তালাক দিবেন) কাছে পৌঁছাবে তখন তিনি সেখানে স্বাক্ষর করবেন এবং তালাকের নোটিশেও স্বাক্ষর করবেন। তবে এ কাজটি করতে হবে বিদেশী নোটারী পাবলিক, আদালতের বিচারক, ম্যাজিস্ট্রেট বা বাংলাদেশ দুতাবাসের বাণিজ্যদুত বা ক্ষমতাপ্রাপ্ত প্রতিনিধির সম্মুখে। এবং তার দ্বারা পাওয়ার অব এ্যাটর্নী বা আমমোক্তারনামা/ ক্ষমতা পত্রটি প্রত্যায়ন করে পাঠাতে হবে এবং নিজ দেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে তা সত্যায়িত করাতে হবে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসনের কার্যালয় থেকে স্ট্যাম্পযুক্ত হতে হবে।

৫। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে পাওয়ার অব এ্যাটর্নী বা আমমোক্তারনামা/ ক্ষমতা পত্রটি সত্যায়িত হওয়ার পর তা জেলা প্রশাসকের রাজস্ব কার্যালয়ে জমা দিয়ে ২০০ টাকার স্ট্যাম্প লাগাতে হবে এবং সেখানে পাওয়ার অব এ্যাটর্নী বা আমমোক্তারনামা/ ক্ষমতা পত্র দলিলের ওপর একটি নাম্বার ও তারিখ পড়বে। এরকম বিদেশি আমমোক্তারনামার সঠিকতা যাচাই করতে হলে জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) কার্যালয়ে গিয়ে ওই নাম্বার দিয়ে যাচাই করে নেয়া যায়।

৬। এরপর আমমোক্তারদাতা ১৯৬১ সালের মুসলিম পারিবারিক আইনের ৭(১) ধারার বিধান অনুযায়ী বিদেশে অবস্থানরত ব্যক্তির পক্ষে স্ত্রী যে এলাকায় বসবাস করছেন সে এলাকার স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান/পৌর মেয়র/সিটি কর্পোরেশন মেয়রকে, আইনজীবীর মাধ্যমে লিগ্যাল নোটিশ এবং তালাকের নোটিশটি রাষ্ট্রীয় ডাকযোগে এডি সহযোগে প্রেরণ করবেন। সেই সাথে তালাক গ্রহীতাকে উক্ত নোটিশের নকল প্রদান করতে হবে। এখানে প্রশ্ন উঠতে পারে যে, তালাকের নোটিশটি কত সময়ের মধ্যে পাঠাতে হবে। আইনে বলা আছে তখনই/ পরবর্তী সময়ে/ যথাশীঘ্রই সম্ভব। এরপর আপনার তালাকের মেয়াদ শুরু হয়ে যাবে। তার ৯০ দিন পর আপনার তালাকটি কার্যকর হবে।

অনেকে প্রশ্ন করে থাকেন, তালাকের নোটিশ গ্রহণ না করলে তালাক কার্যকর হবে কি-না। আপনি উপরোক্ত নিয়মে তালাকের নোটিশ পাঠালে তালাক গ্রহীতা নোটিশ গ্রহণ না করলে কেন গ্রহণ করেননি তা পোষ্ট অফিসের মন্তব্য সম্বলিত নোটিশটি আপনার নিকট ফেরত আসবে। চিঠির খামের উপর লেখা থাকে ‘প্রাপক চিঠি গ্রহণ না করায় ফেরত’ অথবা ‘গ্রহণে অস্বীকৃতি’ অথবা ‘খুঁজে পাওয়া গেল না’ ইত্যাদি। যেদিন চিঠিখানা আপনার নিকট ফিরে আসবে, সেদিন থেকে ৯০ দিন পার হলে তালাক আপনা আপনিই কার্যকর হয়ে যাবে। অনেকে নোটিশ গ্রহণ না করে মিথ্যা বলে থাকে যে তালাকের নোটিশ পায়নি। তারা নিছক বোকার মতো কাজ করে থাকে।

তবে নোটিশ পাওয়ার ৯০ দিন অতিক্রান্ত হওয়ার আগেই যদি তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রী অন্য কারও সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন, তাহলে উক্ত বিয়ে অবৈধ বলে গণ্য হবে। কারণ তালাক সম্পূর্ন কার্যকরী না হওয়া পর্যন্ত পক্ষগন আইনসম্মতভাবে স্বামী-স্ত্রী হিসেবেই থেকে যায়।  এই ৯০ দিন পর্যন্ত স্বামী তার স্ত্রী কে ভরণপোষণও দিতে বাধ্য।

নির্ধারিত নিয়ম ও সময়ান্তে প্রদত্ত একটি তালাক যদি কার্যকর হয়, তখনই কেবল তা রেজিস্ট্রি করার সুযোগ আসবে। বিদ্যমান আইনের বিধানমতে, মুসলিম বিবাহ রেজিস্ট্রি করানো বরের জন্য বাধ্যতামূলক হলেও তালাকের ক্ষেত্রে তা তালাকদাতার ইচ্ছাধীন।

বিস্তারিত জানতে -

এ.জেড.এম. আব্দুস সবুর
এলএল.বি.(অনার্স) নর্দান বিশ্ববিদ্যালয় অব বাংলাদেশ
এলএল.এম.(ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, কুষ্টিয়া)।
আইনজীবী, জজ কোর্ট, ঢাকা।
আইনজীবী, ঢাকা ট্যাক্সেস বার এসোসিয়েশন।
কো-অর্ডিনেটর, আমাদের আইন, মানবাধিকার রক্ষাকারী ও আইনি সহায়তা কার্যক্রম।
সম্পাদক, দেশবিডি২৪.কম এবং স্কাইবাংলা.টিবি
+8801924863399/IMO or WhatsApp
azmabdussobur@gmail.com

\
সম্পাদক ও প্রকাশক
অ্যাড.এ.জেড.এম. আব্দুস সবুর
নির্বাহি সম্পাদক : অ্যাড. নূরে আলম সিদ্দিক
যোগাযোগ : ৮৩ বি, মৌচাক টাওয়ার, মালিবাগ মোড়, ঢাকা -১২১৭ । নিউজ রুম মোবাইল :০১৭৯৬-২০৬০৬৪
নিউজ রুম ইমেইল : news.deshbd24@gmail.com